ক্ষমতার অপব্যবহারের কাছে হার মেনে আজ প্রতিটি পদে পদে /লা/ঞ্ছিত/ হচ্ছে এদেশের খেটে খাওয়া দরিদ্র মানুষগুলী। তবে তারা অসহায় এটাই কি তাদের দোষ? সম্প্রতি জানা গেছে, নওগাঁর বদলগাছীতে কু’প্র/স্তা/বে রাজি না হওয়ায় গত কয়েকদিন ধরে দরিদ্র এক পরিবারকে অ/ব/রু/দ্ধ করে রেখেছেন স্থানীয় প্রভাব/শালী/রা। বাসা থেকে বের হতে না পেরে করতে পারছে না কোনো কাজ, ফলে অনেকটা না খেয়ে দিন কাটাচ্ছে দরিদ্র আব্দুস সালামের পরিবার।
সাবেক ইউপি সদস্য মফের আলীর ছেলে সোহেল রানা উপজেলার বালুভরা ইউনিয়নের কুশারমুড়ি গ্রামে গত দুইদিন থেকে বাড়ির দুই পাশে চলাচলের রাস্তায় বেড়া দিয়েছেন। তাদের/ /অ//ত্যা///চা/রে/ /অ/তি/ষ্ট/ এলা/কাবাসী। অসহায় আব্দুস সালাম প্রশাসনের সুদৃষ্টি /কাম/না করেছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কুশারমুড়ি গ্রামের প্রভাবশালী সাবেক ইউপি সদস্য ম/ফের আলীর ছেলে সোহেল রানা দরিদ্র আব্দুস সা/লা/মের /স্ত্রী/কে/ দী/র্ঘ/দিন থেকে বিভিন্নভাবে /কু/প্র/স্তা/ব/ দিয়ে আসছিলেন।

দুই মাস আগে আব্দুস সালা/মের বা/ড়ি/তে /মা//দ/ক/ /আছে অ/প/বা/দ দিয়ে তাকে ও তার /স্ত্রী/র /গা/য়ে/ /হা/ত তো/লে/ সো/হেল রানা। এ ঘটনায় থানা/য় সোহেল রানাসহ পাঁচজনকে আসামি করে /না//রী /নি//র্যা//ত/নে//র/ মা/ম/লা হয়।

মামলায় সোহেল রানাকে /আ/টক ক/রে জে/লহা/জতে পাঠায় থানা পুলিশ। ১২ দিন হাজ/ত/বাস করে জা/মিনে বেরিয়ে আসেন সোহেল রানা। এরপর/ /মা/ম/লা/ তুলে নিতে আসামিরা বিভি/ন্ন/ভা/বে হু/ম/কি/ দি/চ্ছে/ন বলে অভিযোগ ভু/ক্তভো/গীদের।

সর্বশেষ শনিবার (২১ নভেম্বর) আব্দুস /সা/লা/মের বা/ড়ি/র/ উত্তর ও দক্ষি/ণ পাশে চলা/চলে/র রা//স্তায় সোহেল রানা তার /লা/ঠি/য়া/ল/ বাহিনী দিয়ে বাঁ/শের /বেড়া দিয়েছেন। এতে অ/ব/রু/দ্ধ// হয়ে পড়েছে আব্দুস সালামের পরিবারের ৬ সদস্য।


দরিদ্র অসহায় পরিবারটি বাড়ি থেকে বের হতে পারছে না। খেটে খাওয়া পরিবারটির এখন প্রায় উপোশ থাকার অবস্থা।

কুশারমুড়ি গ্রামের ভুক্তভোগী আব্দুস সালাম বলেন, প্রভাবশালী মফের আলীর ছেলে সোহেল রানা দীর্ঘদিন তার পরিবারের উপর বিভি/ন্ন//ভা/বে /অ///ত্যা//চা/র/ করে আসছে। এ ব্যাপারে থানা/য় একটি /মা/ম/লা/ও হয়েছে। /মা/ম/লা/র পর তা/রা আরও /বে/পা/রো/য়া হয়ে পড়েছে।

তিনি বলেন, /মা/ম/লা/ /তুলে/ নিতে এখন /হু/ম/কি-/ধা/ম/কি/ দিয়ে আসছে। /মা/ম/লা/ তুলে না নেয়ায় তারা শ/নিবার বাড়ির দুই পাশে /চলা/চ/লের /রা/স্তা/য় বাঁ/শে/র বেড়া দিয়েছে। এতে বাড়ি থেকে বের হতে পারছিনা।

একই গ্রামের সাজ্জাদ হোসেন বলেন, তারা (সোহেল রানা) প্রভাবশালী হওয়ায় আমাদের জমি /জো/রপূ/র্ব/ক দখলে নিতে চায়। এনিয়ে গত দুই বছরের অ/ধিক সময় ধরে /মা/ম/লা চলছে। তারা কোনো কিছুকে তো//য়া//ক্কা করে না।

এদিকে অভিযুক্ত সোহেল রা/না হু/ম/কি ধা/ম/কি/ দে/য়ার অভিযোগ অ/স্বী/কা/র করে বলেন, কাউকে অ/ব/রুদ্ধ করতে নয় বরং কবরস্থান রক্ষায় বাঁশের বেড়া দেয়া হয়েছে।

এতোদিন কেন বেড়া দেননি এমন প্রশ্নের কোনো উত্তর তিনি দেননি।

স্থানীয় বালুভরা ইউপি চেয়ারম্যান শেখ মো. আয়েন উদ্দীন বলেন, ঘটনাস্থল দেখেছেন। একটি বাড়ির সামনে চলাচলের পথে বেড়া দিয়ে প্রতিবন্ধকতা তৈরি করা ঠিক হয়নি। দুই পক্ষ যদি আসে আপোষ করে একটি ফায়সালার ব্যবস্থা করা হবে।


এদিকে এ বিষয়ে বদলগাছী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) চৌধূরী জোবায়ের আহাম্মদের কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি সংবাদ মাধ্যমকে জানান, তিনি এখনও এ বিষয়ে অবগত নন। তবে তিনি আশ্বাস দিয়ে বলেছেন, যদি এ ব্যাপরে কোনো অভিযোগ পান তাহলে আইনগত ব্যবস্থা নেবেন।