নিত্যনতুন আজ সারাদেশজুড়েই ঘটছে //ধ///র্ষ//ণে//র মতো ঘটনা। তবে সরকারে এ ব্যাপারে গুরুত্ব দিচ্ছে না এমনটাও নয়, বলতে গেলে এ বিষয়ে কঠোর অবস্থানেই রয়েছে সরকার। তবে এতকিছুর পরও থেমে নেই এ ধরণের অপরাধ প্রবণতা। আর এরই জের ধরে এবার লক্ষ্মীপুরের রামগতিতে আপন মামিকে /অ//নৈ/তি/ক/ কা/জে /বাধ্য /ক//রা/র/ অভিযোগে মো. মিজান (২৩) নামে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে পুলিশ রোববার রাতে অভিযান চালিয়ে চট্টগ্রামের বন্দর থানা এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে।
গ্রেপ্তার মিজান উপজেলার চরগাজী ইউনিয়নের দক্ষিণ টুমচর এলাকার মুরাদ হোসেনের ছেলে। সোমবার আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ জানায়, গত ২০ জানুয়ারি রাতে মিজান একই এলাকার মামার বাড়িতে বেড়াতে যান। এ সময় বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে তিনি তার মামি/কে (২২) ///ধ///র্ষ///ণ// ক/রে/ন। এ ঘটনার /শি/কা//র ওই নারীর মা/ বা/দী হয়ে মি//জানকে আসামি ক/রে গত ২৫ জানুয়ারি রা/মগ/তি থানায় একটি //মা/ম//লা/ /দা/য়ের ক/রেন। পরদিন লক্ষ্মীপুর সদর হা/স/পাতালে ওই /নারীর /ডাক্তারি পরী/ক্ষা করানো হয়।

এদিকে /মা/ম//লা দায়েরের পর অভিযুক্ত মিজান /আ/ত্ম//গো/প/নে চট্ট/গ্রা/মে চ/লে যান। সেখানে দী/র্ঘ/দিন /প/লা/ত/ক থাকার পর তথ্য প্র//যু/ক্তি ব্যব/হা/র করে পুলিশ রোববার রাতে অভিযান চালিয়ে ব/ন্দ/র থানা এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে।


এদিকে এ ব্যাপারে রামগতি থানার ওসি মোহাম্মদ সোলাইমান সংবাদ মাধ্যমকে জানান, আটকের পর প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে এ অভিযোগের কথা স্বীকার করেছেন মা/মলা/র অভিযুক্ত মিজান। এরপর আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে নেয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।