গত ২০১৯ সালের জুলাই মাসের ২৭ তারিখ পর্যায়ক্রমে অন্টারিয়োর মারখাম রোডের নিজ বাড়িতে মা-বাবা, নানী এবং নিজের আপন একমাত্র বোন মেলিসা জামানকে /মা/র্ডা/র/ করেন টাঙ্গাইলের সন্তান মিনহাজ। জানা যায়, তার বাবার নাম মনিরুজ্জামান (৫৯), এবং মায়ের নাম মমতাজ জামান। তবে ইতিমধ্যে তিনি এ ঘটনার দায় স্বীকার করেও নিয়েছেন। গত বৃহস্পতিবার (০১ অক্টোবর) কানাডার অন্টারিয়ো আদালতে মিনহাজের এ ঘটনার স্বীকারোক্তির তথ্য অবহিত করেন তার আইনজীবী এডেলে মনাকোর।
জানা যায়, এভাবেই অতিবাহিত করেন ৪ বছর। মা-বাবা-বোন জেনেছেন গত বছরের ২৮ জুলাই তার গ্র্যাজুয়েশন হবে। এমন একটি শুভক্ষণের প্রতীক্ষায় ছিলেন সকলে। এমন লাগাতার মি/থ্যা/চার ঢাকতেই মিনহাজ সকলকে এই পরিকল্পনা করেন বলে আদালতকে অবহিত করেছেন।

মা-বাবা-বোন-নানীকে /শে/ষে/র পর মিনহাজ মিনেসোটার সেই বন্ধু ডিভন্টে নিকলসনকে ডিসকোর্ডে সেই ছবি প্রেরণ করেন। বন্ধুটি জানতে চাইলে মিনহাজ তাকে লেখেন যে তিনি বাসায়ই আছেন।


তবে এদিকে দেশটির আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তার বিরুদ্ধে আসা এ সকল অভিযোগ এবং অভিযোগের আলোকে এর স্বীকারুক্তি দেওয়ার ভিত্তির এখনও তদন্তের কাজ চলমান রয়েছে বলে জানা গেছে।